আমিতো দেয়ালে দেয়ালে সেঁটেছি পোস্টার ভালোবাসার, তুমি কোন দিকে ফেরাবে মুখ ভালোবাসার: মিরন মেলায় ভালোবাসার পংক্তিমালা

62
miron-mohiuddin

প্রেয়সীর ভালোবাসায় আসক্তি এমন কার না আছে!তাইতো লিখেছেন এমন সহজ,সরল,প্রানবন্ত,নান্দনিক, বেদনার সমুদ্র নীল ভালোবাসার পংক্তিমালা,

আমিতো দেয়ালে দেয়ালে সেঁটেছি পোস্টার ভালোবাসার

তুমি কোন দিকে ফেরাবে মুখ তোমার অহমিকার?

কাল ৩০ জানুয়ারী ছিলো নাট্যকার মিরন মহিউদ্দীনের ৬৪তম জন্মদিন। জন্মস্থান নোয়াখালীতেই বন্ধু, শুভানুধ্যায়ী, নাগরিক সমাজ,বুদ্ধিজীবি,সাংস্কৃতিক কর্মী,সাংবাদিক,রাজনৈতিক মিলে উপস্থিত ছিলেন ভালোবাসার মানুষগুলো। স্বস্ত্রীক নাট্যকার মিরন মহিউদ্দীন জন্মদিনে সিক্ত হলেন ভালোবাসায়, ফুলেল শুভেচ্ছায়,জন্মদিনের কেক কেটে সব্বাই মিলে করলেন আপ্যায়ন।পুরো অনুষ্ঠানটি যেন হয়ে উঠলো মিরন মেলায়!

উপস্থিত ছিলেন অনেকেই।উন্নয়ন সংগঠক এনআরডিএসের নির্বাহী পরিচালক আবদুল আউয়াল, সাংবাদিক জামাল হোসেন বিষাদ, নাট্য অভিনেতা জাহাঙ্গীর কবির,আবৃত্তিকার ও সংগঠক এডভোকেট এমদাদ হোসেন কৈশোরসহ বিভিন্ন সাংস্কৃতিক ও নাগরিক সঙগঠনের প্রতিনিধিরা।

বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য মিরন মহিউদ্দীনের জন্ম ৩০ জানুয়ারি ১৯৫৪।লেখালেখি করতেন ছেলেবেলা থেকেই। প্রথম গল্প ‘অবণীর সমস্ত কথা’ ১৯৭৩ সালে প্রকাশিত হয় দৈনিক বাংলার বাণী পত্রিকায় ।স্বাধীনতা উত্তর নিজ জেলা নোয়াখালীতে গড়েছেন প্রথম গ্রুপ থিয়েটার চতুরঙ্গ। সুস্থ্য চলচ্চিত্র আন্দোলনে সুবর্ণরেখা চলচ্চিত্র চক্র। তাঁর প্রকাশিত গল্পগ্রন্থ: একমাঠ অন্ধকারে দোলনা, নির্জনতায় পাওয়া মানুষের গল্প, লালবিবি উপাখ্যান।

লিখেছেন উপন্যাস আগামী দিনের পালা, হরিণ হাহাকার।

মঞ্চ নাটকের পাশাপাশি লিখেছেন উল্লেখ্যযোগ্য টিভি নাটক কাগুজে বাঘ (এনটিভি), ভালোবাসি যত ভালোবাসি তত (মাছরাঙ্গা টিভি), রোদ্দুরের আকাঙ্খা (বৈশাখী টিভি)এবং তৃতীয় (চ্যানেল নাইন) প্রভৃতি। নাট্যরূপ দিয়েছেন ভালোবাসা অপরাজিত আলো (আরটিভি), নিরূপমা (এটিএন বাংলা), অপরাহ্নের হলুদ উপাখ্যান (বিটিভি), বিবাহ বিচ্ছেদ মামলা (বিটিভি) ইত্যাদি।

মৌলিক নাটক রচনার পাশাপাশি বিটিভিতে তাঁর অনূদিত কয়েকটি বিশ্ব নাটকও প্রচারিত হয় এবং সুধীমহলে প্রশংসা অর্জন করে। উল্লেখ্যযোগ্য অনুবাদ নাটক  হয়্যার দি ক্রস ইজ মেড (ইউজিন ও’ নীল), নো এক্সিট (জাঁ পল সার্ত্র), দ্য বিয়ার (আন্তন চেখভ) ইত্যাদি।

মিরন মহিউদ্দীনকে দেখেছি সেই ছেলেবেলায়। অনুকরনীয় অগ্রজকে আদর্শ বলেই মানেন অনেকেই। ক্ষনিকের দেখা সেই মানুষটির কাল চিলো জন্মদিন। নোয়াখালীতে দেখা সেই মানুষটির জন্মদিনে উপস্থিত হতে না পারার আক্ষেপ নিয়েই অপেক্ষায় রইলাম আগামী দিনের। ভালো থাকুন মিরন মহিউদ্দীন ভাই। প্রত্যাশা তাই শতবর্ষী বৃক্ষ হয়ে ছায়া দিন অনুজদের

আবারও

আমিতো দেয়ালে দেয়ালে সেঁটেছি পোস্টার ভালোবাসার

তুমি কোন দিকে ফেরাবে মুখ তোমার অহমিকার?

ফোকাস বাংলা নিউজ ও টিভি চ্যানেলের পক্ষ থেকে নোয়াখালীর এই গুণী মানুষটির জন্মদিনে শুভেচ্ছা।

ফেসবুক থেকে মন্তব্য করুন