অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন রোমানিয়ান মডেল,ভার্জিনিটি বিক্রি করলেন ১৬ কোটি

163
aleexandra_khefren

রোমানিয়ান মডেল অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন, বয়স ১৮। নারীর মন, এই চায়তো এই চায়না কিন্তু অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন তেমনটা নন। যেমন ভেবেছেন, তেমনি করেছেন।

অদ্ভুত এক খেয়াল চাপল তাঁর,নিজের ভার্জিনিটি বিক্রির সিদ্বান্ত নিলেন। সিদ্বান্ত নিয়েই ক্ষান্ত হলেন না, রীতিমতো নিলামে উটিয়ে নিজের ভার্জিনিটি বিক্রির মুল্য পেলেন ১৬ কোটি টাকা। কি বিষয়টা অবিশ্বাস্য মনে হচ্ছে নাতো? অনলাইনে প্রথম এই সংবাদটি পড়ে অনেকেই বিশ্বাস করতে চাননি। যেমন অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন এর বাবা-মা কি ভেবেছেন তখন? জানা যায় বেজায় রেগে গিয়েছিলেন। কি বলেছে অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন! মেয়ের মাথা ঠিক আছে তো? কি করতে চায় সে? না, সবকিছু ঠিকই আছে। বাবা-মা অনেক আপত্তি করেছেন কিন্তু কোন লাভ হয়নি তাতে।

বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে যৌন মিলন না ঘটিয়ে অর্থের বিনিময়ে নিজের কুমারীত্ব বিক্রি করতে চান অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন। যেমন কথা তেমন কাজ। ইচ্ছেপূরণ করেই ছাড়লেন মডেল অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন। আর বাবা-মা? তাঁরা যা ভাবার ভাবুক।লোকে যা বলার বলুক। খেফ্রেনের তা নিয়ে কোনও মাথা ব্যথা নেই। একটি টিভি চ্যানেলে নিজের ইচ্ছের কথা জানান রোমানিয়ান এই উঠতি মডেল। নিজের এমন ইচ্ছের পিছনে অদ্ভুত এক যুক্তিও দেখান তিনি।

বলেন অ্যালেজান্দ্রা খেফ্রেন,“বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে যৌনমিলন করব। তারপর সে আমায় ছেড়ে চলে যেতে পারে। তাতে আমার তো কোনও লাভই হল না। তার চেয়ে বরং আমি এমন একজনের সঙ্গে প্রথমবার যৌন মিলন করব যা থেকে আমি কিছু উপার্জন করতে পারব।” তারপরই সিন্ড্রেলা এসকর্টস নামের একটি ওয়েবসাইটকে নিজের ইচ্ছের কথা জানান খেফ্রেন। এখানে নাম রেজিস্টার করালেই কেল্লা ফতে। ওয়েবসাইটের তরফে জানানো হয়, জনপ্রিয় এই মডেলের কুমারীত্ব কেনার জন্য ভক্তদের লম্বা লাইন পড়ে গিয়েছিল। নিলামে খেফ্রেনের ভার্জিনিটির ন্যূনতম মূল্য ছিল ভারতীয় মুদ্রায় আনুমানিক ৮ কোটি টাকা। ৩০০ জনেরও বেশি ব্যক্তি দর হাঁকেন।

অবশেষে হংকংয়ের এক ব্যবসায়ীর ভাগ্যে শিকে ছেঁড়ে। জানতে চান কত টাকায় বিক্রি হল ভার্জিনিটি? ১৬ কোটি টাকা। জানা গিয়েছে, জার্মানির এক হোটেলে মডেলের সঙ্গে দেখা করবেন ওই ব্যক্তি। কোনও সমস্যা যাতে না হয় তার জন্য মডেলের সঙ্গে পাঠানো হবে সিন্ড্রেলা এসকর্টের এক কর্মীকেও। খেফ্রেন বলছেন, “নতুন একটা অভিজ্ঞতা হতে চলেছে আমার। যে বিষয়ে আমার কোনও ধারণা নেই। আমি বেশ উত্তেজিত।”

সত্যি সেলুকাস কি বিচিত্র এই দেশ। ভাগ্যিস আপনি কুমার বা কুমারী নন। হলেও বা কি আর এমন করে আয় করা যেতো! এবার অপেক্ষায় থাকুন। জার্মানির হোটেল থেকে ভার্জিনিটি হারানো বিজ্ঞপ্তি সহসাই প্রকাশ করা হবে।

সর্বশেষ গোয়েন্দা তথ্য অনলাইনে রাতারাতি বিখ্যাত হয়ে উঠা সিন্ড্রেলা এসকর্টস নামের ঐ ওয়েব সাইটে লাইন ধরেছেন জানা-শোনা অনেকেই। কি একবার ট্রাই করবেন নাকি?

ইন্টারনেট অবলম্বনে

ফোবানি/মৃত্তিকা

ফেসবুক থেকে মন্তব্য করুন